ধর্ম

শিক্ষা ও পরিবেশের মাধ্যমে জাতি পরিবর্তন হয় : চরমোনাই পীর

  জাগো নরসিংদী ৪ ডিসেম্বর ২০২১ , ৪:৩১:অপরাহ্ণ অনলাইন সংস্করণ

মো. হাবিবুর রহমান সুমন

শায়েখে চরমোনাই আলহাজ্ব হযরত মাওলানা মুফতি সৈয়দ মোহাম্মদ ফয়জুল করীম কাসেমী বলেন, ‘শিক্ষা ও পরিবেশের মাধ্যমে একটি জাতিকে পরিবর্তন করা যায়।মুসলমানের ঘরে জন্ম নিয়েও কেউ নাস্তিক ও বেইমান হতে পারে। আবার কেউ হিন্দুর ঘরে জন্ম নিয়েও ঈমানদার হতে পারে।আজকের দুনিয়ায় নামধারী মুসলমানের সংখা অনেক বেশি।মুসলমানের ঘরে জন্ম নিয়েও ছেলে -মেয়েরা অমুসলিম কাজ করে বেশি বেশি।মুসলমানদের নেকির কাজ করতে ভালো লাগে না।পাপ কাজ করতে বেশি ভালো লাগে। হুমায়ন আজাদ,হুমায়ন ফরিদ,তসলিমা নাসরীনের মতো লোকেরা মুসলমানের ঘরে জন্ম নিয়েও তাদের কাছে ইসলামের কথা ভালো লাগে না।মনে হয় ইসলামের কথা শুনলে তাদের গায়ে আগুন লেগে যায়।কারণ তারা ইসলামী শিক্ষায় শিক্ষিত না।’ তিনি আরো বলেন, পহেলা বৈশাখ হলো হিন্দুদের।উৎসব পালন করবে হিন্দুরা।কিন্তু বাস্তবে আমরা দেখি হিন্দুের সাথে বাঙ্গালী পরিচয়ে হাজার হাজার মুসলমান ছেলে – মেয়েরা পহেলা বৈশাখ পালন করে।এটা কি মুসলমানের সংস্কৃতি? আল্লাহর ভয় ব্যতিত আইন করে কখনো ধর্ষণ, ইভটিজিং, চুরি,ডাকাতি,মাদ্রক বন্ধ করা যাবে।’

মুজাহিদ কমিটি মাছিমপুর ইউনিয়ন শাখার উদ্যোগে আজ শনিবার রাতে শিবপুর উপজেলার চৌঘরিয়া আব্দুল মান্নান ভূঁইয়া আদর্শ বিদ্যাপাঠ মাঠে ওয়াজ মাহফিলে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ কথা বলেন।ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ শিবপুর উপজেলা শাখার সিনিয়র সভাপতি আব্দুর রহীম মীরের পরিচালনায় মোবারক হোসেন মোমেনের সভাপতিত্বে আরো ওয়াজ করেন চরমোনাই মাদ্রাসার শিক্ষক হযরত মাওলানা মুফতি নইমুদ্দীন হাবিবী,শিবপুর উপজেলা মুজাহিদ কমিটির সাধারন সম্পাদক আরিফুল ইসলাম,শিবপুর উপজেলা কোরআন শিক্ষাবোর্ডের সভাপতি হারুনুর রশীদ,ইসলামী আন্দোলন শিবপুর উপজেলা শাখার সেক্রেটারি মাওলানা নাসির উদ্দীন প্রমুখ।

আরও খবর

আরো খবর